জন্মদিনে ক্যান্সার রোগীদের জন্য নিজের চুল দান করলেন গৃহবধূ পায়েল পাল

নিজস্ব সংবাদদাতা,‌ মেদিনীপুর: নিজের জন্মদিনটা একটু অন্যভাবে পালন করলেন মেদিনীপুর শহর লাগোয়া তলকুই এলাকার বাসিন্দা বছর ৩৩ এর গৃহবধূ পায়েল পাল। বৃহস্পতিবার নিজের ৩৪ তম জন্মদিন উপলক্ষ্যে নিজের শখের মাথার চুলের প্রায় কুড়ি ইঞ্চি কেটে দান করলেন ক্যান্সার রোগীদের জন্য। মেদিনীপুর কুইজ কেন্দ্র সোশ্যাল ওয়েলফেয়ার সোসাইটির সদস্যা পায়েল পাল ক্যান্সার রোগীদের চুল দানের বিষয়টা প্রথম শোনেন বছর চারেক আগে মেদিনীপুর কুইজ কেন্দ্রের প্রতিষ্ঠাতা সম্পাদক মৌসম মজুমদারের কাছ থেকে।তারপর সংবাদপত্রে এরকম একটি খবর দেখে মন স্থির করে ফেলেন নিজের চুল দান করবেন। সেদিন থেকেই চুলের আরও যত্ন নিতে থাকেন।

নিজের জন্মদিন উপলক্ষ্যে তার সেই সযত্নে বড়ো করা চুল থেকে ২০ ইঞ্চি লম্বা চুল কেটে দান করলেন চিকিৎসার কারণে চুল উঠে যাওয়া ক্যানসার রোগীদের পরচুলা বানানোর জন্য।

পায়েল ইতি মধ্যেই বেশ কয়েকটি সংস্থার বিজ্ঞাপনে মডেল হিসেবে কাজ করেও সাড়া ফেলে দিয়েছেন। কয়েকটি জুয়েলারী কোম্পানী, বুটিক – শাড়ির সংস্থা ও প্রসাধনী সংস্থার হয়ে বিজ্ঞাপনে মডেল হিসেবে কাজ করেছেন।

পায়েলের জন্ম বর্তমান ঝাড়গ্রামের গিধনীতে। পায়েলের বাবা কালাচাঁদ পাল পেশায় ব্যবসায়ী এবং মা সোনালী পাল চট্টোপাধ্যায় পেশায় স্বাস্থ্যকর্মী।পায়েল সেখানে উচ্চ-মাধ্যমিক পর্যন্ত পড়াশোনার পর মেদিনীপুরের রাজা এন এল খান মহিলা কলেজে ফিলজফি নিয়ে অনার্স পাশ করেছেন।

স্বামী অরিন্দম দাস শিক্ষকতা করেন। তিনিও নানান সামাজিক কাজকর্মের জন্য মেদিনীপুরের পরিচিত মুখ। স্ত্রীর এরকম একটি মহৎ কাজের জন্য তিনি বেশ গর্বিত বোধ করছেন।

পায়েলের একমাত্র ছেলে অভিরূপ পুরুলিয়া রামকৃষ্ণ মিশনে সপ্তম শ্রেণীর ছাত্র। মায়ের এই কাজের জন্য অভিরূপ গর্বিত। শ্বশুর- শাশুড়ী স্বামী-পুত্র নিয়ে সংসার করতেই তাঁর সব থেকে বেশি ভালো লাগে। বৃহস্পতিবারও শাশুড়ি মায়ের হাতে পায়েস মিষ্টি খেয়ে একেবারে ঘরোয়া বাঙালি রীতি মেনেই জন্মদিন পালন করেছেন পায়েল। শাশুড়ি সন্ধ্যা দাস এবং শ্বশুর মশাই বঙ্কিম চন্দ্র দাস বলেন, “বৌমার এরকম মহৎ কাজে, ওর জন্য আজ বেশ গর্বিত বোধ করছি”।
নিজের জন্মদিনকেই সব থেকে উপযুক্ত দিন মনে করেই পায়েল চুল কেটে কুরিয়ারের মাধ্যমে পাঠালেন মুম্বাইয়ের “মদত” ট্রাস্টের কাছে। তারাই চুল সংগ্রহ করে ক্যানসার রোগীদের জন্য পরচুলা তৈরি করে বিনামূল্যে তা সরবরাহ করেন।পায়েলের চুল দানের খবর ইতিমধ্যে সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে পড়েছে। সোস্যাল মিডিয়ায় সবাই যেমন একদিকে পায়েলকে জন্মদিনের শুভেচ্ছা জানিয়েছেন তেমনি ক্যান্সার রোগীদের চুল দানের মতো মহৎ কাজের জন্য কুর্ণিশ জানিয়েছেন।